নোবেলজয়ী পোলিশ লেখক ওলগা তোকারজুক। ৬০ বছর বয়সি এই লেখক এখনো রূপকথার বই পড়তে ভীষণ ভালোবাসেন। ২ এপ্রিল ‘বিশ্ব শিশু বই দিবস’ উপলক্ষে এক সাক্ষাতকারে তিনি এই তথ্য প্রকাশ করেন।

শনিবার (২ এপ্রিল) নোবেল প্রাইজের অফিসিয়াল ফেসবুক পেজে তোকারজুকের সাক্ষাতকারটি প্রকাশ করা হয়।

তোকারজুক বলেন, ‘আমি এখনো রূপকথাগুলি খুব পছন্দ করি। আমি এগুলিকে এক ধরনের কবিতা হিসেবে পড়ি।’

নোবেলজয়ী এই লেখক জানান, সম্প্রতি তিনি গ্রিম ভাইদের রূপকথার একটি নতুন ভলিউম কিনেছেন। রূপকথার বই ছাড়াও জুলভার্নের বইও তার উপর বেশি প্রভাব ফেলেছে বলে মনে করেন তিনি।

তিনি উল্লেখ করেন, শৈশবেই তার বাবা-মাকে বই কিনতে, পড়তে এবং তা নিয়ে আলোচনা করতে দেখেছেন। ছোটবেলায় তিনি বাবার সাথে লাইব্রেরিতে সময় কাটাতে ভালবাসতেন। সেসময় বই পড়ার মাধ্যমেই তিনি বিশ্বের বিভিন্ন দেশের সংস্কৃতি সম্বন্ধে জানতে পারেন।  

ওলগা তোকারজুক ২০১৮ সালে সাহিত্যে নোবেল পুরস্কার পান। একই বছর তিনি ‘ফ্লাইটস’ উপন্যাসের জন্য ইন্টারন্যাশনাল বুকার প্রাইজ পেয়েছিলেন। চলতি বছরের ইন্টারন্যাশনাল বুকার প্রাইজের প্রাথমিক তালিকায় তার উপন্যাস ‘দ্য বুকস অব জ্যাকব’ স্থান করে নিয়েছে।

Leave a Reply